অবৈধ মিলামেশার জন্য পোষা কুকুরকে তাড়ালেন মালিক

অবৈধ মিলামেশার জন্য পোষা কুকুরকে তাড়ালেন মালিক

আন্তর্জাতিক ডেস্ক ::

মালিকের অনিচ্ছা সত্ত্বেও পাড়ারই এক ছোকরা কুকুরের সঙ্গে ‘অবৈধ’ সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েছিল সুন্দরী পোমেরানিয়ান কুকুরটি। যা মেনে নেননি তার মালিক। যার ফলে যা হওয়ার তাই হল। রেগেমেগে পোষা সেই কুকুরকে বাড়ি থেকেই বের করে দিলেন বাড়ির মালিক।
অবাক হলেও, এমনই ঘটনা ঘটেছে ভারতের তিরুঅনন্তপুরমের চক্কাই এলাকায়।

চক্কাইয়ের ওয়ার্ল্ড মার্কেট রোডের ওপরে মেলে বছর তিনেকের ওই কুকুরটি। পিপলস ফর অ্যানিমাল (পিএফএ)-র এক স্বেচ্ছাসেবী সাদা লোমশ কুকুরটিকে উদ্ধার করে নিয়ে যান নিজেদের ডেরায়।

শামিম নামে ওই উদ্ধারকারী জানিয়েছেন, ওই কুকুরটির গলায় ঝোলানো মালিকের লেখা একটি নোট। তাতে লেখা ‘ও খুবই ভাল কুকুর, ভাল স্বভাব, প্রচুর খাবার লাগে এমনটাও নয়। কোনো অসুখ নেই । শুধু সপ্তাহে পাঁচ দিন অন্তর গোসল করাতে হয়। গত তিন বছরে কাউকে কামড়ানোর রেকর্ড নেই। মোটের ওপরে দুধ, বিস্কুট আর ডিম খায়।’

তার সঙ্গে লেখা রয়েছে বাড়ি থেকে বের করে দেয়ার কারণও। জানানো হয়েছে, প্রতিবেশীর কুকুরের সঙ্গে ‘অবৈধ’ সম্পর্কে জড়িয়ে পড়ার কারণেই এই সিদ্ধান্ত।

এ হেন কাণ্ডে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন পশুপ্রেমীদের একাংশ। কারো মতে, প্রজনন ঋতুতে কুকুরদের এমন ব্যবহার অত্যন্ত স্বাভাবিক। যদি তার মালিক কুকুরটির প্রজননই আটকাতে চাইতেন, তা হলে কুকুরদের বন্ধ্যাত্বকরণের চিকিৎসা করাতে পারতেন। আর যদি কুকুরের কৌমার্য্য রক্ষাই মূল উদ্দেশ্য হত, ঘরে আটকে রাখা উচিত ছিল কুকুরটিকে।

শামিম বলেন, সাধারণত অসুস্থ বা আহত কুকুরদেরই রাস্তায় ফেলে যেতে দেখেছেন তিনি। তবে এমন অদ্ভুত কারণে কুকুরকে বাড়ি ‌থেকে তাড়িয়ে দেয়ার ঘটনা বিরল।

শামিম আরো বলেন, বেশ মিষ্টি কুকুরটি। খুব শিগগিরই যে কেউ না কেউ কুকুরটিকে দত্তক নিয়ে নেবেন, সে বিষয়েও তিনি নিশ্চিত।

সংবাদটি শেয়ার করতে এখানে ক্লিক করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© এই পোর্টালের কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্ব অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
Design BY NewsTheme
error: Content is protected !!