যমুনা নদীর ভাঙনে বিলীন হচ্ছে ঘরবাড়িসহ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান

যমুনা নদীর ভাঙনে বিলীন হচ্ছে ঘরবাড়িসহ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান

:: নিউজ বুক প্রতিবেদক ::

টাঙ্গাইলের নাগরপুরে যমুনা নদীতে ব্যাপক ভাঙ্গন দেখা দিয়েছে। নদী ভাঙ্গনের ফলে দুই শতাধিক বসত বাড়ী, ফসলি জমি, গাছপালা ও একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান যমুনায় বিলীণ হচ্ছে। এতে দিশেহারা হয়ে পড়েছে ভাঙ্গন কবলিত নদী পাড়ের অসহায় মানুষ।

জানা যায়, টাঙ্গাইলের নাগরপুর উপজেলার সলিমাবাদের পাইকশা মাইঝাইল এলাকায় যমুনা নদীতে বন্যার পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় ভাঙ্গন দেখা দেয়। ভাঙ্গনে স্থানীয় পাইকশা মাইঝাইল বাজারের ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ও বসতবাড়ি যমুনা নদী গর্ভে বিলীন হয়ে গেছে। ভাঙ্গনের কবলে পড়ে ভেঙ্গে পড়েছে নব নির্মিত ৩৫নং পাইকশা মাইঝাইল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের দ্বিতল ভবন।

নদী ভাঙ্গন রোধে স্থায়ী কোন উদ্যোগ না নেয়ায় ভাঙ্গনের কারনে উদ্বেগ ও উৎকন্ঠায় রয়েছেন এলাকাবাসি। ইতোমধ্যে এলাকার লোকজন ভাঙ্গন আতঙ্কে তাদের ঘড় বাড়ি অন্যত্র সড়িয়ে নিচ্ছে।

ভাঙ্গনের শিকার ক্ষতিগ্রস্থরা জানান, যমুনার ভাঙ্গনে কমপক্ষে দুইশত পরিবারের বসত ভিটা নদী গর্ভে চলে গেছে। সহায় সম্বলহীন ক্ষতিগ্রস্থরা সরকারের কাছে সহযোগীতার দাবি করেন।

নাগরপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার সৈয়দ ফয়েজুল ইসলাম বলেন, যারা নদী ভাঙ্গনে আশ্রয় হারিয়েছেন তাদের অস্থায়ী আশ্রয় কেন্দ্র জনতা মহা বিদ্যালয় ও ইউনিয়ন পরিষদে আশ্রয় নেওয়ার ব্যবস্থা করা হয়েছে। এছাড়াও নদী ভাঙ্গনে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারের তালিকা করে সরকারিভাবে সহযোগীতা করা হবে।

সংবাদটি শেয়ার করতে এখানে ক্লিক করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© এই পোর্টালের কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্ব অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
Design BY NewsTheme
error: Content is protected !!